ঢাকাসোমবার , ২৬শে ফেব্রুয়ারি, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ
  1. অর্থনীতি
  2. আইটি বিশ্ব
  3. আজকের ঢাকা
  4. আজকের রাশিফল
  5. আদর্শ সদর
  6. আমাদের পরিবার
  7. আর্ন্তজাতিক
  8. ইসলামী জীবন
  9. উদ্ভাবন
  10. করোনা
  11. কুমিল্লা
  12. কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়
  13. কুমিল্লা সিটি কর্পোরেশন
  14. খুলনা
  15. খেলাধুলা
আজকের সর্বশেষ সবখবর

শিক্ষা ও যোগাযোগে বদলে যাবে কুমিল্লা

Edited by_Sakib al Helal
সেপ্টেম্বর ২৫, ২০২১ ৬:৫৫ পূর্বাহ্ণ
Link Copied!

সকালের কুমিল্লা ডেস্ক।।
কুমিল্লার শিক্ষা ও যোগাযোগ খাতে ব্যাপক উন্নয়ন কাজ হচ্ছে। কাজগুলো সম্পন্ন হলে বদলে যাবে কুমিল্লা। তার মধ্যে উল্লেখযোগ্য কুমিল্লা-নোয়াখালী মহাসড়কের ফোর লেনের কাজ। যা সম্পন্নের পথে।

ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কে কুমিল্লার সদর দক্ষিণ উপজেলার বেলতলী, পদুয়ার বাজার ও সদর দক্ষিণ উপজেলার সামনে তিনটি আন্ডার পাস নির্মিত হবে। এ ছাড়া ইউলুপ নির্মিত হবে পদুয়ার বাজার এলাকায়। চলছে কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়ের ক্যাম্পাস সম্প্রসারণের কাজ। এ ছাড়া কুমিল্লা সিটি করপোরেশনে আসছে বড় বাজেট।

সড়ক ও জনপথ বিভাগ কুমিল্লার সূত্র জানায়, কুমিল্লা নগরীর টমছম ব্রিজ থেকে নোয়াখালীর বেগমগঞ্জ পর্যন্ত ৫৯ কিলোমিটার ফোর লেনে উন্নীতকরণের কাজ চলছে। কাজ সম্পন্ন হলে দেশের দক্ষিণাঞ্চলের জেলাগুলোসহ সারা দেশের মানুষ উপকৃত হবেন। ২০১৮ সালের সেপ্টেম্বরে শুরু হওয়া কাজ ২০২২ সালের জুনে শেষ হওয়ার কথা রয়েছে। এটি বাস্তবায়িত হচ্ছে দুই হাজার ৩০ কোটি টাকা ব্যয়ে।

কুমিল্লা মোটর অ্যাসোসিয়েশনের (বাস মালিক সমিতি) সভাপতি জামিল আহমেদ খন্দকার বলেন, কুমিল্লা-নোয়াখালী মহাসড়কের ফোর লেনের কাজ দ্রুত শেষ করা প্রয়োজন। এতে চালক, যাত্রী সবাই উপকৃত হবেন। এদিকে ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কে কুমিল্লার সদর দক্ষিণ উপজেলার বেলতলী, পদুয়ার বাজার ও সদর দক্ষিণ উপজেলার সামনে তিনটি আন্ডার পাস নির্মিত হবে। এ ছাড়া ইউলুপ নির্মিত হবে পদুয়ার বাজার এলাকার হোটেল নূরজাহানের সামনে। এসব স্থানে সম্প্রতি দুর্ঘটনা ও যানজট বেড়ে গিয়েছিল।
৩ কিলোমিটার এলাকায় এসব আন্ডার পাস ও ইউলুপ নির্মিত হওয়ায় দুর্ঘটনা ও যানজট কমবে বলে আশা সড়ক ও জনপথ বিভাগের। সূত্রমতে, সম্প্রতি কুমিল্লার তিনটি আন্ডার পাস ও ইউলুপ নির্মাণের প্রকল্প অনুমোদন হয়। এতে ব্যয় ধরা হয় ৫৬৮ কোটি টাকা। কাজটি ২০২৪ সালের জুনের মধ্যে শেষ করার সময়সীমা নির্ধারণ করা হয়েছে। সড়ক ও জনপথ বিভাগ কুমিল্লার নির্বাহী প্রকৌশলী মো. রেজা-ই-রাব্বী বলেন, কুমিল্লা-নোয়াখালী আঞ্চলিক মহাসড়কের কাজ ৭০ ভাগ সম্পন্ন হয়েছে। বাকি কাজ দ্রুত শেষের চেষ্টা চলছে। এদিকে ইউলুপ ও আন্ডার পাস প্রকল্পটি শেষ হলে এ অঞ্চলের মানুষের দুর্ভোগ কমবে। কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়ের ক্যাম্পাসে ব্যাপক অবকাঠামোগত উন্নয়ন হচ্ছে। ১ হাজার ৬৫৫ কোটি ৫৫ লাখ টাকার কাজ চলছে। জমি অধিগ্রহণ হয়ে গেছে। কাজ শেষ হলে কুমিল্লার শিক্ষা ব্যবস্থায় নতুনমাত্রা যোগ হবে। বিশ্ববিদ্যালয়ের ভিসি প্রফেসর ড. এমরান কবির চৌধুরী বলেন, মাস্টারপ্ল্যান নিয়ে কাজটি করা হচ্ছে। আগামী ৫০ বছরের পরিকল্পনা করা হয়েছে। আশা করছি আগামী দুই বছরে কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয় নতুন রূপে প্রকাশিত হবে। কুমিল্লা ভিক্টোরিয়া সরকারি কলেজটির অবকাঠামোগত বিভিন্ন উন্নয়নমূলক কাজ শুরু হয়েছে। ক্যাম্পাসে নতুন দিনের হাতছানি দেখা যাচ্ছে। কাজ সমাপ্ত হলে বদলে যাবে ক্যাম্পাসের চেহারা। সূত্র জানায়, এখানে শিক্ষা ব্যবস্থা ও অবকাঠামোগত উন্নয়নের জন্য নেওয়া হয়েছে বিভিন্ন পদক্ষেপ। প্রায় ৪০০ কোটি টাকার একটি প্রকল্প অনুমোদনের অপেক্ষায় রয়েছে। পাস হলে আরও ব্যাপক অবকাঠামোগত উন্নয়ন হবে। বিশেষ করে পাঁচটি একাডেমিক ভবন, ১ হাজার আসনের অডিটরিয়াম, ১ হাজার সিটের করে ছাত্রছাত্রীদের জন্য দুটি হোস্টেল নির্মাণ করা হবে। অধ্যক্ষ প্রফেসর ড. আবু জাফর খান বলেন, বিভিন্ন উন্নয়ন কাজ শুরু হয়েছে। বড় প্রকল্পটি অনুমোদন পেলে ব্যাপক উন্নয়ন কাজ করা যাবে। এদিকে সিইডিপি প্রজেক্টের মাধ্যমে আমাদের কলেজের উন্নয়ন কাজ শুরু হয়েছে। কুমিল্লা সিটি করপোরেশনের (কুসিক) দেড় হাজার কোটি টাকার প্রকল্প একনেকে অনুমোদনের অপেক্ষায় রয়েছে। অনুমোদন পেলে কুমিল্লা নগরীর চেহারা পাল্টে যাবে। কুমিল্লা সিটি করপোরেশনের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা ড. সফিকুল ইসলাম বলেন, এটি অনুমোদন পেলে কুমিল্লার পুরাতন গোমতী নদী এলাকায় হাতিরঝিলের আদলে প্রকল্প বাস্তবায়িত হবে। এ ছাড়া সড়ক উন্নয়ন, ড্রেন, কালভার্ট ও ফুটপাথের উন্নয়ন করা হবে। তিনি আরও বলেন, স্থানীয় সরকারমন্ত্রী বিষয়টি সরাসরি দেখভাল করছেন। আশা করছি, আমরা দ্রুত ভালো খবর পাব।

এই সাইটে নিজম্ব নিউজ তৈরির পাশাপাশি বিভিন্ন নিউজ সাইট থেকে খবর সংগ্রহ করে সংশ্লিষ্ট সূত্রসহ প্রকাশ করে থাকি। তাই কোন খবর নিয়ে আপত্তি বা অভিযোগ থাকলে সংশ্লিষ্ট নিউজ সাইটের কর্তৃপক্ষের সাথে যোগাযোগ করার অনুরোধ রইলো।বিনা অনুমতিতে এই সাইটের সংবাদ, আলোকচিত্র অডিও ও ভিডিও ব্যবহার করা বেআইনি।